চরিত্রহীন বলায় রাগের বশে পোশাক খুলেছিলাম

মদ্যপ অবস্থায় লিফটে উঠে পুলিশের সামনে পোশাক খুলে ফেলেছিলেন মুম্বইয়ের মডেল মেঘা শর্মা৷ এই ঘটনার পর থেকেই শিরোনামে রয়েছেন তিনি৷ পুলিশকর্মীরা তাঁর বিরুদ্ধে অভব্য আচরণের অভিযোগ এনেছিলেন৷ পালটা পুলিশের বিরুদ্ধে কুমন্তব্যের অভিযোগে সরব ওই মডেল৷

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছিল মডেল মেঘা শর্মার কাণ্ড৷ ওই ভিডিওতে দেখা গিয়েছিল, একটি বিলাসবহুল হোটেলের লিফটের সামনে নিরাপত্তারক্ষীদের ধমক দিচ্ছেন মেঘা। পুলিশকর্মীদের সঙ্গে কথা কাটাকাটির পর পোশাক খুলে ফেলেন তিনি৷ এই ঘটনা প্রসঙ্গে এক সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মেঘা দাবি করেন, ঘটনার দিন রাত ১টা নাগাদ হোটেলে হেনস্তার শিকার হন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে ১০০ নম্বর ডায়াল করে পুলিশে ফোন করেন মেঘা৷ মিনিট দশেকের মধ্যেই ঘটনাস্থলে আসে পুলিশ। পুলিশকে বিস্তারিতভাবে গোটা ঘটনা জানান তিনি৷ মেঘার অভিযোগ, গোটা ঘটনা শোনার পর পুলিশ তাঁকে ‘চরিত্রহীন’ বলে কটাক্ষ করে৷ রাজকন্যার মতো তোমার সঙ্গে আচরণ করতে পারব না বলে পুলিশ জানায় বলেই দাবি মেঘার৷

মেঘার দাবি, কথা কাটাকাটির পর রাতেই ওশিওয়াড়া থানায় নিয়ে যাওয়ার জন্য জোর করে পুলিশ৷ ওই পোশাকে থানায় যেতে চান না বলে পুলিশকে জানান তরুণী৷ আইনজীবীর সঙ্গে পুলিশকে কথা বলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেন মেঘা৷ তবে পুলিশ প্রায় জোর করে লিফট থেকে নামিয়ে তাকে থানায় নিয়ে যায় বলেই অভিযোগ মেঘার৷ মহিলা পুলিশ না থাকা সত্ত্বেও এভাবে তাকে গ্রেপ্তার করা, পুলিশের অনুচিত বলেও দাবি এই উঠতি মডেলের৷ পুলিশকর্মীদের ব্যবহারে মাথা ঠান্ডা রাখতে না পেরে সকলের সামনে পোশাক খুলে ফেলেন বলেও জানান মেঘা৷ আপাতত আতঙ্কেই তাঁর দিন কাটছে বলেও দাবি তরুণীর৷

Post a Comment

0 Comments