বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচে দাপট রোহিতদের, বড় রানের লক্ষ্যে ভারত

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে বড় রানের লক্ষ্যে এগোচ্ছে ভারত। বিশাখাপত্তনমে বৃষ্টির জেরে প্রথম দিনের খেলা অনেকটাই আগে শেষ করে দিতে হয়। প্রায় ৩০ ওভার নষ্ট হয় প্রথম দিনেই। বেলা ২ টো নাগাদ হঠাৎই আকাশ মেঘাচ্ছন্ন হয়ে যায়। মিনিট পাঁচেকের মধ্যেই প্যাভিলিয়নে ফিরে যান ক্রিকেটাররা। নির্ধারিত সময়ের প্রায় ৩ ঘণ্টা আগেই চা পানের বিরতি ঘোষণা করা হয়। এদিকে বৃষ্টি আরও বাড়তে থাকে। ফলে চা বিরতির পর আর খেলা শুরু করা যায়নি। শেষ পর্যন্ত আজকের মতো ম্যাচ স্থগিত রাখা হয়। আবহাওয়া ঠিক থাকলে আগামিকাল যথাসময়ে খেলা শুরু হবে।

এদিন খেলা স্থগিত হওয়ার আগে পর্যন্ত দাপট দেখিয়েছেন ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। বিশাখাপত্তনমে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় ভারত। ওপেন করতে আসেন রোহিত শর্মা এবং মায়াঙ্ক আগরওয়াল। ইনিংসের শুরুটা সহজ ছিল না ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের জন্য। কাগিসো রাবাদা ও ভার্নন ফিলান্ডার প্রথম থেকেই কঠিন পরীক্ষায় ফেলছিলেন টিম ইন্ডিয়ার ব্যাটসম্যানদের। কিন্তু প্রথম কয়েক ওভার ধৈর্য্য ধরে খেলেন দুই ওপেনার। প্রাথমিক জড়তা কাটতেই সাবলীল হয়ে যান রোহিত এবং মায়াঙ্ক। স্পিনাররা বল করতে আসতেই জাঁকিয়ে বসেন দুই ভারতীয় ওপেনার। বিশেষ করে রোহিত শর্মা। স্পিনারদের সামনেও দুর্দান্ত খেলেন তিনি। ১২টা বাউন্ডারি এবং ৫টি ওভার বাউন্ডারি হাঁকিয়ে টেস্ট ক্রিকেটের চতুর্থ সেঞ্চুরিটি করে ফেলেন রোহিত।

এদিনের ম্যাচ, ওপেনার হিসেবে রোহিতের কাছে পরীক্ষা ছিল। বলা বাহুল্য, সেই পরীক্ষায় লেটার মার্কস নিয়ে উতরে গেলেন তিনি। রোহিত যে ধৈর্য্যের পরিচয় দিলেন তা আগামীদিনে ভারতীয় ক্রিকেটের জন্য সুসংবাদ। তবে, রোহিতের পাশাপাশি ময়ঙ্ক আগরওয়ালেরও প্রশংসা করতে হয়। টিম ইন্ডিয়ার হিটম্যানকে যোগ্য সঙ্গত করে চলেছেন তিনি। অনবদ্য ৮৪ রানের ইনিংসে ১১টি বাউন্ডারি এবং ২টি ওভার বাউন্ডারি মারেন মায়াঙ্ক। দুই ওপেনারের অনবদ্য অপরাজিত পারফরম্যান্সের জন্য প্রথম দিনের খেলা ভেস্তে যাওয়া পর্যন্ত ভারতের স্কোর বিনা উইকেটে ২০২ রান।

Post a Comment

0 Comments